গোলাম মোর্শেদ চন্দনের তিনটি গীতিকবিতা | চিন্তাসূত্র
৪ মাঘ, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ | ১৭ জানুয়ারি, ২০১৯ | বিকাল ৩:২৭

গোলাম মোর্শেদ চন্দনের তিনটি গীতিকবিতা

এক.
মানুষ মেরে কিভাবে তোর ধর্ম রক্ষা হয়?
কোন কিতাবে লেখা আছে  কোন শাস্ত্রে তা কয়?
মানুষ হতে ঘুরিস পথে ঘুরিস আপনায়।।

আপনাতে মিললে আপন
গুরু ভক্তি করলে বহন
সবে রে তোর স্বপ্নেরও ঘোর আসবে নিরালায়।
মানুষ হতে ঘুরিস পথে ঘুরিস আপনায়।

আপন আপন করিস যারে
সে থাকে যদি আঁধারে
বলিস তারে সে আপনারে চিনতে ঘুরিস অজানায়।
মানুষ হতে ঘুরিস পথে ঘুরিস আপনায়।

দুই.
কী ঘটাতে কী সব ঘটাও
ক্ষমা পেতে আমায় পটাও
মন থেকে ওসব না হটাও, ক্ষমা পাবে না যে
কেন তুমি ব্যস্ত থাকো অমন ভুলের মাঝে।

জীবনের ভুল বিছানায়
পড়ে আছ নাম না-জানায়
তাকে যদি শোধরানো যায়, সুখ পাবে তো কাজে।

জীবনের ভুলগুলোকে বানাবে যখনই ফুল
দিতে হবে না তখন সে ভুলের কোনো মাশুল।

এবার ওসব সঙ্গ ছাড়ো
কমবে জীবনের ধারও
ভুলটা যদি বুঝতে পারো, মরবে দুঃখে লাজে।

তিন.
জন্ম সত্য মৃত্যু সত্য, সত্যের আছে নানান ফের
না বুঝে কেউ বলো না আর, কোনটা তোমার সে আখের।

আখেরাতের দোহাই দিয়া, যাচ্ছো তাদের কোথায় নিয়া
ছেড়ে দাও এই ধর্ম ব্যাবসা, বেহেস্তেরও ভুল মতে।
ওসব তোমায় দেখাবে না, হারাবে যে ভুল পথে।
এভাবে যাবে না জানা সৃষ্টি কত রকমের।

জাহেরীকে চলো মেনে বাতেনিকে না-ই জেনে
নিজেকে ভাবো জ্ঞানী, ওটা আসল জ্ঞান নয়।
বলছি তাদের ভেদ মোহাফের নিজেকে যে জানতে হয়
দিচ্ছে চন্দন অভিনন্দন যারা চেনে নিজেদের।

মন্তব্য

চিন্তাসূত্রে প্রকাশিত কোনও লেখা পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার দণ্ডনীয় অপরাধ।


কোন মন্তব্য নাই.

লেখাটি সম্পর্কে আপনার মন্তব্য লিখুন